1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. ittehadnews24@gmail.com : ইত্তেহাদ নিউজ২৪ : ইত্তেহাদ নিউজ২৪
সোমবার, ১৯ এপ্রিল ২০২১, ০৫:৫৯ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
সরকার নির্দেশিত স্বাস্থ্যবিধি মানতে ব্যর্থ হলে কবর খোড়ার লোকও পাওয়া যাবে না – খোরশেদ আলম সুজন মেডিকেলে ভর্তির সুযোগ পাওয়া আর্থিকভাবে অসচ্ছল ছাত্রের পাশে -ইশা ছাত্র আন্দোলন সাংবাদিককে খেয়ে ফেলতে চান তিনি? কুষ্টিয়ায় একদিনে ৩৯ করোনা রোগী শনাক্ত, ২ জনের মৃত্যু করোনার নতুন ভেরিয়েন্টে বেশি আক্রান্ত হচ্ছে তরুণরা করোনার ভয় উপেক্ষা করে মাস্ক, সাবান ও স্যানিটাইজার বিতরণে মাঠে নেমেছেন সুজন সরকারি নির্দেশনা পালনের জন্য জনগনের প্রতি অনুরোধ সব বীর মুক্তিযোদ্ধাই পাবেন উৎসব-বিজয় ও নববর্ষ ভাতা সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, মাদক ও দুর্নীতিমুক্ত দেশ গড়ায় আন্তরিকভাবে কাজ করতে এনএসআই’র প্রতি আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর জাটকা সংরক্ষণ সপ্তাহ-২০২১ উদযাপন উপলক্ষে পটুয়াখালী জেলায় উদ্বোধনী অনুষ্ঠান ও সাঁতার প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত পূণ্যময় রজনী শবে বরাত
শিরোনাম
সব বীর মুক্তিযোদ্ধাই পাবেন উৎসব-বিজয় ও নববর্ষ ভাতা সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ, মাদক ও দুর্নীতিমুক্ত দেশ গড়ায় আন্তরিকভাবে কাজ করতে এনএসআই’র প্রতি আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দূরদর্শী নেতৃত্বে ১৮ কোটি মানুষের ৩৬ কোটি হাতের সম্মিলিত প্রয়াসে আমাদের উন্নয়নশীল দেশে উত্তরণ ঘটেছে : আইজিপি পটুয়াখালীতে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে ঐতিহাসিক ৭ মার্চ পালিত বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণের মাধ্যমে নিরস্ত্র বাঙালি সশস্ত্র বাঙালিতে রূপান্তরিত হয়েছিল : তথ্যমন্ত্রী কমনওয়েলথে অনুপ্রেরণাদায়ী শীর্ষ ৩ মহিলা নেতার অন্যতম শেখ হাসিনা -কমনওয়েলথ মহাসচিব বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধা বঙ্গবন্ধুর ৭ মার্চের ভাষণ পৃথিবীর কালজয়ী ভাষণগুলোর অন্যতম : প্রেসিডেন্ট সরকার পবিত্র ঈদ-ই-মীলাদুন্নবী (সঃ) দিবসটিকে রাষ্ট্রীয়ভাবে পালনের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করায় ছারছীনার পীর ছাহেবের পক্ষ থেকে অভিনন্দন ক্যান্সারের ওপর বেশি করে গবেষণার গুরুত্বারোপ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার

ইসলাম ও মুসলমানদের খেদমতে আওয়ামী লীগ সরকারের অবদান অত্যন্ত প্রশংসনীয়

  • আপডেট করা হয়েছে রবিবার, ১৪ মার্চ, ২০২১
  • ৬০ বার পড়া হয়েছে
ছারছীনা থেকে মোঃ আবদুর রহমান :
ধর্ম প্রতিমন্ত্রী মোঃ ফরিদুল হক খান বলেছেন, ইসলাম ও মুসলমানদের খেদমতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অবদান অত্যন্ত প্রশংসনীয়। ইসলামের খেদমতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইতোমধ্যে অসামান্য অবদান রেখেছেন। তিনি বলেন, পৃথিবীর ইতিহাসে সরকারি পৃষ্ঠপোষকতায় একসাথে ৫৬০টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র প্রতিষ্ঠার ইতিহাস বিরল। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রায় ৯ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ে বাংলাদেশের প্রতিটি জেলা ও উপজেলায় একটি করে মোট ৫৬০টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র স্থাপন স্থাপন করছেন। মুজিব বর্ষে ১০০টি মসজিদ উদ্বোধন করা হবে।
আজ পিরোজপুরের নেছারাবাদ ছারছিনা মাদ্রাসা মাঠে মাদ্রাসার বার্ষিক ওয়াজ মাহফিলের দ্বিতীয় দিনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রী এসব কথা বলেন।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আল কোরআন ডিজিটাইজেশন (আল কোরআন : ডিজিটাল), ইসলামি আরবি বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা, জাতীয় মসজিদ বায়তুল মুকাররমের সৌন্দর্য বৃদ্ধি ও সম্প্রসারণ, ইসলামিক ফাউন্ডেশন লাইব্রেরি ভবন নির্মাণ সম্পন্ন করেছেন।
প্রতিমন্ত্রী আরো বলেন, সরকার হজ ব্যবস্থাপনায় ডিজিটাল সুবিধা চালু করেছে। হজে গমনেচ্ছু ব্যক্তিগণ অনলাইনে হজের প্রাক-নিবন্ধন ও নিবন্ধন সম্পন্ন করতে পারছেন। Makkah Route Initiative Framework-এর আওতায় সৌদি আরবের ইমিগ্রেশন বাংলাদেশেই সম্পন্ন হচ্ছে। সরকার জেদ্দা হজ টার্মিনালে ‘বাংলাদেশ প্লাজা’ স্থাপন করেছে। ঢাকা আশকোনা হজ ক্যাম্পের সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধি করেছে।
ফরিদুল হক খান বলেন, মসজিদভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা কার্যক্রমের মাধ্যমে আলেম-ওলামাদের কর্মসংস্থান, মসজিদভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা এবং কোরআন শিক্ষা কার্যক্রমে মহিলাদের কর্মসংস্থানের সুযোগ তৈরি হয়েছে। তিনি আরো বলেন, জাতীয় শিক্ষানীতিতে মসজিদভিত্তিক শিশু ও গণশিক্ষা কার্যক্রমকে প্রাক-প্রাথমিক শিক্ষার অংশ হিসেবে অন্তর্ভুক্তি, কওমী শিক্ষার্থীদের দাওরায়ে হাদিস সনদকে মাস্টার্স সমমান প্রদান, ১০০০টি বেসরকারি মাদ্রাসায় একাডেমিক ভবন নির্মাণ, ৮০টি মাদ্রাসায় অনার্স কোর্স চালুকরণ,
ইমাম-মুয়াজ্জিন কল্যাণ ট্রাস্ট প্রতিষ্ঠা করে ইসলাম ও মুসলমানদের প্রতি তাঁর আন্তরিকতাপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেছেন।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মাত্র সাড়ে তিন বছরের শাসন আমলে ইসলামের প্রচার ও প্রসারে অসামান্য অবদান রেখে গেছেন। তিনি ইসলামিক ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা, জাতীয় পর্যায়ে ঈদ-ই-মিলাদুন্নবী (সা) পালন, বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড পুনর্গঠন (পূর্বে স্বায়ত্তশাসিত মাদ্রাসা বোর্ড ছিল না), বিশ্ব ইজতেমার জন্য টঙ্গীতে জায়গা বরাদ্দ, কাকরাইলের মারকাজ মসজিদ সম্প্রসারণের জন্য জমি বরাদ্দ, হজ পালনের জন্য সরকারি অনুদানের ব্যবস্থা, ঈদে মিলাদুন্নবী (সা ), শব-ই-কদর ও শব-ই-বরাত উপলক্ষে ছুটি ঘোষণা এবং উল্লিখিত দিনগুলোতে সিনেমা হলে সিনেমা প্রদর্শন বন্ধ রাখার নির্দেশনা প্রদান করেছিলেন।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু মদ, জুয়া, হাউজি ও অসামাজিক কার্যকলাপ নিষিদ্ধকরণ ও শাস্তির বিধান করেছিলেন। তিনি রেসকোর্স ময়দানে ঘোড় দৌড় প্রতিযোগিতা বন্ধ করেন, রাশিয়াতে প্রথম তাবলীগ জামাত প্রেরণের ব্যবস্থা, আরব ইজরাইল যুদ্ধে আরব বিশ্বের পক্ষে সমর্থন ও সাহায্য প্রেরণ, ওআইসি সম্মেলনে যোগদানের মাধ্যমে মুসলিম বিশ্বের সাথে কূটনৈতিক সম্পর্ক স্থাপন, সমুদ্রপথে হজযাত্রীদের জন্য জাহাজ ক্রয়, বেতার ও টিভিতে পবিত্র কোরআন তেলাওয়াত প্রচারের ব্যবস্থা গ্রহণ করেছিলেন।
ফরিদুল হক খান বলেন, প্রধানমন্ত্রী অন্যান্য বিষয়ের ন্যায় ইসলাম ও মুসলমানদের স্বার্থসংশ্লিষ্ট বিষয়ে বঙ্গবন্ধুর পথ অনুসরণ করে জাতির পিতার অসমাপ্ত স্বপ্ন বাস্তবায়নে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন।
ছারছীনা দরবার শরীফের পীর শাহ মোঃ মুহিব্বুল্লাহ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মাহফিলে আরো বক্তব্য রাখেন ধর্ম সচিব মোঃ নুরুল ইসলাম, ইসলামিক ফাউন্ডেশন এর বোর্ড অভ্ গভর্নরস এর গভর্নর ড. মাওলানা মোঃ কাফিলুদ্দিন সরকার।
বিশাল এ মাহফিলে দেশের বিভিন্ন প্রান্ত হতে লাখ লাখ মুসল্লি ও ভক্তগণ অংশগ্রহণ করেন।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন