1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. ittehadnews24@gmail.com : Ittehad News24 : ইত্তেহাদ নিউজ২৪
শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ০৩:০৫ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
মুন্সিগঞ্জের কামারখোলা খানকায়ে ছালেহীয়া মুহিব্বিয়া দীনিয়া মাদ্রাসা কমপ্লেক্সে জামাতে উলার ছাত্রদের ছবক অনুষ্ঠান ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত বাংলাবাজার খানকায়ে নেছারিয়ায় তা’লিমী জলসা অনুষ্ঠিত Malette Poker Jetons de Poker Boutique en ligne পটুয়াখালীতে প্রফেসর একেএম শহীদুল ইসলাম ট্রাস্ট উদ্যোগে ৪০ এতিম ও দুঃস্থ শিক্ষার্থীকে নগদ অর্থ প্রদান শতাব্দীর ঐতিহ্যবাহী ছারছীনা আলিয়া মাদ্রাসার নতুন অধ্যক্ষ হিসেবে যোগদান করেছেন মাওলানা রূহুল আমিন আফসারী পাথরঘাটা মাদ্রাসার প্রতিষ্ঠাতা কাজী মুনসুর আহমেদ (রহঃ) মৃত্যু বার্ষিকীতে দোয়া ও মিলাদ অনুষ্ঠিত আমল যত বেশি বেশি করবেন আক্বীদা তত মজবুত হবে -ছারছীনার পীর ছাহেব। পটুয়াখালীতে জাতীয় সংসদের নবনির্বাচিত সাংসদ নাজনীন নাহারকে ফুলেল সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত সর্বদা কুরআন ও সুন্নাহ অনুযায়ী আমল করার চেষ্টা করাই আমাদের একমাত্র লক্ষ্য -ছারছীনার পীর ছাহেব। কোস্ট গার্ডকে ত্রিমাত্রিক বাহিনী হিসেবে গড়ে তুলছে সরকার : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
শিরোনাম
শতাব্দীর ঐতিহ্যবাহী ছারছীনা আলিয়া মাদ্রাসার নতুন অধ্যক্ষ হিসেবে যোগদান করেছেন মাওলানা রূহুল আমিন আফসারী আমল যত বেশি বেশি করবেন আক্বীদা তত মজবুত হবে -ছারছীনার পীর ছাহেব। পটুয়াখালীতে জাতীয় সংসদের নবনির্বাচিত সাংসদ নাজনীন নাহারকে ফুলেল সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত সর্বদা কুরআন ও সুন্নাহ অনুযায়ী আমল করার চেষ্টা করাই আমাদের একমাত্র লক্ষ্য -ছারছীনার পীর ছাহেব। কোস্ট গার্ডকে ত্রিমাত্রিক বাহিনী হিসেবে গড়ে তুলছে সরকার : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছারছীনা দরবার শরীফের তিনদিনব্যাপি বার্ষিক মাহফিল শুরু নিভে যাওয়া প্রদীপে আলো জ্বেলেছেন প্রফেসর আব্দুর রশীদ টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতার সমাধিতে জাতীয় প্রেসক্লাবের শ্রদ্ধা অগ্রযাত্রায় খামারিদের অন্তর্ভুক্ত করবে স্মার্ট ফারমার্স কার্ড : প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী আন্দোলন করেই তত্ত্বাবধায়কের দাবি আদায় করব -বিএনপির সেমিনারে মির্জা ফখরুল

নবী কারীম (সাঃ) ও সাহাবায়ে কেরাম (রাঃ) এর যুগে নববর্ষ পালনের রেওয়াজ ছিল কিনা ?

  • আপডেট করা হয়েছে শনিবার, ২২ আগস্ট, ২০২০
  • ৪১৯ বার পড়া হয়েছে
ধর্মীয় প্রতিবেদকঃ
আজ ১ মুহাররম ১৪৪২ হিঃ, শুক্রবার। নবী কারীম (সাঃ) ও সাহাবায়ে কেরাম (রাঃ) এর যুগে নববর্ষ পালনের রেওয়াজ ছিল কিনা জানিনা। তবে এতটুকু বলতে পারি ষে , বিভিন্ন কারণে হিজরী নববর্ষ তাতপর্য বহন করে।
১. আল্লাহ তায়ালা এরশাদ করেছেন- ان عدة الشهور عند الله اثنا عشر شهرا الاية. এ আয়াতের মর্মানুযায়ী মাস ও বর্ষ গননায় বছরের প্রথম মাসের প্রথম দিনটি গুরুত্বের দাবী রাখে।
২. মুহররম মাসের 10 তারিখ ঐতিহাসিক ঘটনাবহুল ও ফজীলতপূর্ণ আশুরা দিবস স্মরণ রাখতে ও পালন করতে মাসের প্রথম দিন তথা হিজরী নববর্ষ মনে রাখা অপরিহার্য।
৩. আল্লাহর বাণী وليال عشر এর তাফসীরে কেউ কেউ আল্লাহর শপথকৃত মহিমান্বিত দশ রাত্রি হিসেবে মুহাররম মাসের প্রথম দশ রাত্রির কথা বলেছেন। সুতরাং মহিমান্বিত দশ রজনীর প্রথম দিন তথা হিজরী নববর্ষ তাত্পর্যবহ।
৪. পবিত্র কুরআনের বাণী يسالونك عن الاهلة قل هي مواقيت للناس والحج الاية এর মর্মার্থ অনুযায়ী সকল মাসের চন্দ্রের উদয়-অস্তের চেয়ে বছরের প্রথম মাসের চন্দ্র উদয়কে একটু বেশী গুরুত্ব দেয়াই স্বাভাবিক।
৫. হিজরী সন গননা করা হয় মহানবী সাঃ এর হিযরতকে স্মরণ করে। হিযরত ছিল ইসলামের প্রসার ও মহা বিজয়ের সূচনা। আজ থেকে 1441 বছর পূর্বে ইসলামের দিগ্বিজয়ের দ্বার উন্মুক্ত হয়েছিল। নববর্ষের দ্বারা ইসলামের প্রাচিনত্বে আরেকটি পালক যুক্ত হল।
৬.  ইসলামের অনেক ইবাদত মাস ও বছরের সাথে সম্পৃক্ত। তাই নববর্যের হাত ধরে উক্ত ইবাদতের জন্য প্রতীক্ষার পালা শুরু হয়।
তবে এ নববর্ষ দ্বারা নতুন প্রেরণা লাভ করা ব্যতীত বিশেষ কোন মাহাত্বের দাবী করা বিদয়াত তথা পরিতাজ্য হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন

Categories